The Sky is Pink-একটি প্রানকে মৃত্যুর থাবা থেকে ফিরিয়ে আনার আপ্রাণ প্রচেষ্টার গল্প

Pavel Chakma

বর্তমানে মুভি দেখতে পছন্দ না করা কাউকে খুঁজে পাওয়া খুব দুষ্কর।করোনা মহামারীর লকডাউনে মুভি-সিরিজ দেখেই অনেকে দিন পার করছে।কিছু কিছু মুভি রয়েছে যেগুলো দেখার পর তার রেশ মানুষের মাঝে বহুদিন রয়ে যায়।আজ তেমনি একটি মুভি নিয়ে কথা বলব।মুভিটির নাম  the sky is pink। এটি ২০১৯ সালের ১১ই অক্টোবর মুক্তি পায়।এতে মূল চরিত্রে অভিনয় করেছেন ফারহান আখতার, প্রিয়াঙ্কা চোপড়া জোনাস, জায়রা ওয়াসিম ও রোহিত সারাফ।নিঃসন্দেহে মুভিটি বলিউডের অন্যতম আন্ডার রেটেড মুভি।প্রথমেই হয়ত মুভির নাম শুনেই অবাক হয়েছেন।কেননা আমরা সবাই জানি আকাশ নীল রঙের হয়।এখানে তাহলে আকাশের রঙ গোলাপি বলা হলো কেন? মুভিতে একটি সংলাপে বলা হয় যে “আগার তুমহে লাগতাহে কি তুমহারা স্কাই কা কালার পিংক হ্যায় তো পিংক হ্যা,কোই অর কে লিয়ে তুমহারা স্কাই কা কালার চেঞ্জ কারনেকি জারুরাত নেহি” যার অর্থ “যদি তোমার মনে হয় যে তোমার আকাশের রঙ গোলাপি তাহলে তোমার আকাশ গোলাপি,কারো জন্য নিজের আকাশের রঙ বদলানোর দরকার নেই”।এই সংলাপটি মুভিটিকে অন্য মাত্রায় নিয়ে গেছে।আসলে আমাদের সকলেরই নিজস্ব একটা জগত আছে,যা আমরা সকলেই নিজস্ব রঙে রাঙাই।আমাদের সে জগতকে অন্যের কারনে কখনোই বদলানো উচিত নয়।

এবার আসি মুভিটির মুল কাহিনীতে।মুভিটি নির্মিত হয় আয়শা চৌধুরী নামের এক মেয়ের জীবন কাহিনির উপর যে কিনা এক বিরল রোগ নিয়ে এক মধ্যবিত্ত দম্পতির ঘরে জন্ম নেয়।সেই রোগের কারনে প্রতিরক্ষাতন্ত্র দূর্বল হওয়ার ফলে আয়শার বেচে থাকার সম্ভাবনা কমে যায়।আয়শার জন্মের আগেই সে পরিবারে তার আরো এক বড় বোন একই রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়াই এবার আয়শার বাবা মা চাইলেন যেভাবেই হোক তারা আয়শাকে বাচানোর জন্য লড়াই করে যাবেন।যাদের হানিমুনে কাছের কোনো দেশে যাওয়ার সামর্থ্য ছিল না তারাই সর্বস্ব নিয়ে ছুটে যান লন্ডন। লন্ডনে গিয়ে কি আয়েশাকে তারা বাচাঁতে পেরেছিল সেটি জানতে দেখতে হবে মুভিটি।

মুভিটিতে বাবা মা সন্তানের জন্য কি না করতে পারে তা খুব ভালভাবেই উপস্থাপন করা হয়েছে।মেয়েকে বাচাঁনোর জন্য বাবা মার সংগ্রাম কিংবা অসুস্থ আয়শার বেঁচে থাকার আকুতি দেখতে দেখতে কখন যে চোখ ভিজে যাবে টেরই পাবেন না।আজকাল আমরা অনেকেই খুব দ্রুত বেচেঁ  থাকার আগ্রহ হারিয়ে ফেলি।এ মুভিটি জীবন যে কত মূল্যবান কিংবা সুস্থ থাকতে পারাটা কতটা সৌভাগ্যের তা উপলব্ধি করাবে।মুভিটি দেখার পর মনের মাঝে একটা আক্ষেপ তৈরি হবে যে এটি সত্য ঘটনা না হলেও পারত!

পর্যালোচকঃ পাভেল চাকমা

 696 total views,  2 views today

One thought on “The Sky is Pink-একটি প্রানকে মৃত্যুর থাবা থেকে ফিরিয়ে আনার আপ্রাণ প্রচেষ্টার গল্প

  • April 24, 2021 at 8:31 pm
    Permalink

    review dekhe sotti movie ti dekhte issha kortese 🤩 onek shundhor kore uposthapon korecho pavel 🤍take love dea🤗

    Reply

Leave a Reply

Your email address will not be published.